kalchitro
Bongosoft Ltd.
ঢাকা মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই, ২০২২, ২১ আষাঢ় ১৪২৯

সাগরে ডুবে গেল হংকংয়ের ভাসমান জাম্বো


কালচিত্র | বিশ্ব ডেস্ক প্রকাশিত: জুন ২১, ২০২২, ০৭:৫৪ পিএম সাগরে ডুবে গেল হংকংয়ের ভাসমান জাম্বো

হংকংয়ের বিখ্যাত একটি ভাসমান রেস্তোরাঁ সাগরের পানিতে ডুবে গেছে। মূলত বন্দর থেকে দূরে সরিয়ে নেওয়ার কয়েকদিন পরেই রেস্তোরাঁটি ডুবে যায়। প্রায় ৫০ বছর ধরে হংকয়ের আইকনিক ল্যান্ডমার্ক বলে পরিচিত এই রেস্তোরাঁটি ওই বন্দর এলাকায় তার কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিল।

ভাসমান এই রেস্তোরাঁটি জাম্বো রেস্তোরাঁ হিসেবে পরিচিত। এর মূল সংস্থা জানিয়েছে, জাম্বো রেস্তোরাঁটিকে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যাওয়ার পথে দক্ষিণ চীন সাগরে ডুবে গেছে। মঙ্গলবার (২১ জুন) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

জাম্বো রেস্তোরাঁর মূল সংস্থা অ্যাবারডিন রেস্তোরাঁ এন্টারপ্রাইজ বলেছে, তারা এই ‘ঘটনায় খুব দুঃখিত’। তবে রেস্তোরাঁ-ডুবির ঘটনায় তাদের কোনো ক্রু আহত হয়নি। অবশ্য করোনা মহামারির কারণে ২০২০ সালের মার্চ মাসে রেস্টুরেন্টটি বন্ধ হয়ে যায়।

বিবিসি বলছে, বছরের পর বছর ধরে ৩০ লাখেরও বেশি অতিথি জাম্বো রেস্তোরাঁর ক্যান্টনিজ খাবার খেয়েছেন বলে মনে করা হয়। অতিথিদের মধ্যে ব্রিটেনের রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ, টম ক্রুজ এবং রিচার্ড ব্র্যানসনও রয়েছেন। এমনকি এই রেস্তোরাঁটি একটি বন্ড মুভি-সহ বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রেও প্রদর্শিত হয়েছে। তবে করোনা মহামারিতে এর ব্যবসা মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

রেস্তোরাঁর মালিকরা জানিয়েছেন, ভ্রমণের আগে ভাসমান রেস্তোরাঁটি পরিদর্শন করার জন্য মেরিন ইঞ্জিনিয়ারদের নিয়োগ করা হয়েছিল এবং প্রয়োজনীয় ‘সকল প্রাসঙ্গিক অনুমোদন’ নেওয়া হয়েছিল।

মূলত নতুন অপারেটরের অপেক্ষায় জাহাজটিকে একটি অজ্ঞাত স্থানে থাকার কথা ছিল বলে জানিয়েছে বিবিসি। তবে গত রোববার প্যারাসেল দ্বীপপুঞ্জের কাছে ‘প্রতিকূল পরিস্থিতির সম্মুখীন’ হওয়ার পরে এটিতে পানি উঠতে শুরু করে এবং ডুবে যায় বলে জানিয়েছে অ্যাবারডিন রেস্টুরেন্ট এন্টারপ্রাইজ।

সংস্থাটির দাবি, ‘রেস্তোরাঁটি যেখানে ডুবে গেছে সেখানে পানির গভীরতা ১ হাজার মিটারের বেশি এবং এটিই রেস্তোরাঁটিকে উদ্ধারের কাজ অত্যন্ত কঠিন করে তুলেছে।’

বিবিসি বলছে, করোনা মহামারিতে হংকংয়ের এই আইকনিক রেস্টুরেন্ট চূড়ান্তভাবে বন্ধ হলেও বছরের পর বছর ধরে এটি আর্থিক সমস্যার মধ্যেই ছিল। মেলকো ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্ট নামে একটি অপারেটর গত মাসে জানায়, জাম্বো রেস্তোরাঁটি ২০১৩ সাল থেকে লাভজনক ছিল না এবং বিপুল পরিমাণ লোকসান করছিল।
 

Side banner