kalchitro
Bongosoft Ltd.
ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯

রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধ


কালচিত্র | সেলিম উদ্দিন প্রকাশিত: জুলাই ৩১, ২০২২, ১১:৪৪ পিএম রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধ

সেলিম উদ্দিন 

রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধ

রাশিয়ার ইউক্রেন যুদ্ধ নিয়ে অনেকের অনেক অভিমত আছে। থাকতে পারে। ইউরোপ আমিরিকার ব্লকের সমর্থকরা হয়তো ভেবেছিলো রাশিয়াকে নিষেধাজ্ঞা দিয়ে কুপোকাত করা যাবে সহজেই। কিন্তু রাশিয়ার মতো ভূসম্পদে সমৃদ্ধ দেশকে বাইর থেকে জাজ করা শুধু কঠিন নয় অনেকটা দুঃসাধ্যও বটে!

ন্যাটোর সাথে জোটভুক্ত অনেক দেশ যে কারণে ন্যাটোভুক্ত হয়েছিলো আমার মনে হয় সে প্রত্যাশায় এখন ভাটা।

ইউরোপ শুধু ঝগড়া বাঁধাতে জানে। দু দুটো বিশ্বযুদ্ধের ডামাডোল সে কথাই প্রমাণ করে।

রাশিয়াকে কুপোকাত করার জন্য বিশ্বমোড়ল(!) আমিরিকার অনেক স্বপ্ন। হতেই পারে। রাশিয়া যে আমিরিকার দাদাগিরিতে বাধ সাধে!

বাংলাদেশ পাকিস্তান যুদ্ধে পাকিস্তানের পক্ষে সপ্তম নৌবহর পাঠানো আমিরিকার চূড়ান্ত প্রচেষ্টাও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সূর্যকে নব দিগন্তে উন্মেষ থেকে ঠেকিয়ে রাখতে পারেনি আমিরিকা।

বাংলাদেশ আমিরিকার প্রতিপক্ষ নয়। বাংলাদেশের বৈদেশিক নীতি- 'Friendship to all, malice to none' policy নেয়া হয়েছিলো বাংলাদেশ যাতে সবার সাথে তাল মিলিয়ে নিজেদের অবস্থানকে পাকাপোক্ত করতে পারে।

যা হোক, আমরা বাংলাদেশীরা সবার সাথেই পথ চলাতে অভ্যস্ত হতে হবে। সেক্ষেত্রে রাশিয়া কিংবা আমিরিকার প্রতি বিদ্বেষ কিংবা ইউরোপকে এড়ানো বাংলাদেশের পক্ষে সম্ভব নয়। তবে সবার মধ্যেও কিছু আপনজন থাকতে হয়। সে আপনজনরা নিজেদের সুখ-দুঃখে পাশে থাকে। সে আপনজনকে কখনো পিছ দিতে নেই।

রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধে আমি ব্যক্তিগতভাবে রাশিয়ার পক্ষে। রাশিয়া যে কারণে ইউক্রেনকে আক্রমণ করেছে তা আমার কাছে যুক্তিযত মনে হয়েছে।

পৃথিবীর ভারসাম্য রক্ষার জন্য রাশিয়ার মতো পরাশক্তির অতীব প্রয়োজন।

অনেকে আমার সাথে একমত পোষণ না করতে পারেন। সেটা আপনার ব্যক্তিগত ব্যাপার।

তবে ডলার ইউরোর বিকল্প মুদ্রা ব্যবস্থার প্রয়োজনীয়তা এখনকার বিশ্ব বুঝতে পেরেছে বলেই আমার মনে হয়।

Side banner